ফ্লোরিডা

যুক্তরাষ্ট্রে থ্যাঙ্কস গিভিং ডে পালিত

thanksgiving
উৎসব-আমেজে যুক্তরাষ্ট্রে থ্যাংকস গিভিং ডে পালিত হয়েছে। দেশটিতে নভেম্বরের শেষ বৃহস্পতিবার দিবসটি পালিত হয়। আনন্দ ভ্রমণ, নৈশভোজ ও মূল্য ছাড়ে বিপুল পরিমাণ পণ্য কেনার মধ্য দিয়ে গতকাল দিবসটি পালন করা হয়েছে।

বিদায়ী মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা হোয়াইট হাউসে তাঁর মেয়াদের শেষ থ্যাংকস গিভিং ডে পালন করছেন পারিবারিকভাবে। তবে প্রথা অনুযায়ী উৎসবের অন্যতম অনুষঙ্গ টার্কি ভোজ থেকে তিনি বিরত থেকেছেন।

অপরদিকে নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প দিবসটি পালনের জন্য ফ্লোরিডার পাম বিচে নিজের অবকাশকেন্দ্রে জড়ো হয়েছেন পরিবার নিয়ে। তিনি সব বিভেদ ভুলে গিয়ে সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন। গত এক বছরে আমেরিকায় বিভেদ বেড়েছে উল্লেখ করে তিনি বলেছেন, সামনে এগিয়ে যাওয়ার জন্য আমেরিকার জনগণকে পারস্পরিক বন্ধন দৃঢ় করতে হবে।

নির্বাচনে অনাকাঙ্ক্ষিত কিছু পরিস্থিতির কারণে এবারের থ্যাংকস গিভিং ডে সামনে রেখে অনেক উদ্বেগ-উৎকণ্ঠা ছিল। তবে গতকাল উৎসব-আনন্দে কোনো ভাটা চোখে পড়েনি।

ঐতিহ্যগতভাবে এবারও থ্যাংকস গিভিং ডে প্যারেড আয়োজন করা হয়। এ উপলক্ষে বিখ্যাত প্রতিষ্ঠান ম্যাসিস ম্যানহাটনে বিশাল শোভাযাত্রা করে। এবার কড়া নিরাপত্তায় এ প্যারেড অনুষ্ঠিত হয়েছে। রংবেরঙের সাজে, সংগীতে প্যারেডে যোগ দিয়েছে হাজারো মানুষ।। নাশকতা এড়ানোর জন্য নগরীর পুলিশ বাহিনীকে ভারী অস্ত্র নিয়ে অবস্থান নিতে দেখা গেছে।

অভিবাসীরা পুরো বছর নিজেদের উৎসব-আনন্দ নিয়ে মেতে থাকলেও থ্যাংকস গিভিং ডে তে আমেরিকার জীবনধারার সঙ্গে তাদের মিশে যেতে দেখা যায়। ঘরে ঘরে টার্কি উৎসব লেগে যায়। গির্জা থেকে শুরু করে দাতব্য কেন্দ্রগুলোতে টার্কি খাওয়ানো হয় দরিদ্র লোকজনকে। আমেরিকার নাগরিকদের পরিবারের সবাইকে নিয়ে দিবসটি পালন করতে দেখা যায়। অভিবাসীরাও ছুটে যান নিজেদের স্বজনের কাছে। প্রবাসী বাংলাদেশিরাও বড় বড় টার্কি পার্টির আয়োজন করেছে।

থ্যাংকস গিভিং ডে উপলক্ষে বিকেলে ভোজ শেষে শপিংয়ের জন্য হামলে পড়ার ঐতিহ্য রয়েছে যুক্তরাষ্ট্রে। ব্ল্যাক ফ্রাইডে নামের এমন পাগল করা শপিং আগে শুরু হতো বৃহস্পতিবার মধ্যরাত থেকে। গত কয়েক বছর বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা থেকেই শুরু হচ্ছে। পণ্যের ওপর বছরের সবচেয়ে বেশি মূল্য ছাড় দেওয়া হয় এদিন। এবারও বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান তাদের পণ্যের ওপর বিপুল পরিমাণের মূল্য ছাড় দিয়েছে। ৬০ ইঞ্চি টেলিভিশন মাত্র ৪০০ ডলারে (প্রায় ৩২ হাজার টাকা) বিক্রির বিজ্ঞাপন দেখে লোকজন লাইন ধরেছে তা কেনার জন্য। নতুন সব গেম থেকে শুরু করে গৃহসামগ্রী ফ্রিজ, ডিশ ওয়াশার, ড্রায়ার, মাইক্রোওয়েভ ওভেন বিক্রি হয়েছে অন্য সময়ের তুলনায় অর্ধেক দামে।

আপনার মন্তব্য জানান