মেরিল্যান্ড

বিসিএ কমিউনিটি কেয়ার ইউনিটের সভা

maryবাংলাদেশ খ্রিষ্টান অ্যাসোসিয়েশন কমিউনিটি কেয়ার ইউনিট, এলএলসির নবম বার্ষিক সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। মেরিল্যান্ড-ভার্জিনিয়া ও ওয়াশিংটন ডিসিতে বসবাসরত প্রায় এক শ সদস্য এই সভায় উপস্থিত ছিলেন। ২৯ মে রোববার মেরিল্যান্ডে এই সভা অনুষ্ঠিত হয়। মধ্যাহ্ন ভোজের পরপর শুরু হয় সভার কার্যক্রম। ইউনিটের সভাপতি সুবোধ আর্থার রোজারিও শুভেচ্ছা বক্তব্যের মাধ্যমে সভার সূচনা করেন। তিনি বিগত বছরের সংক্ষিপ্ত পর্যালোচনা করে সবাইকে নির্ধারিত আলোচনায় অংশগ্রহণের আমন্ত্রণ জানান।

প্রথমে বিগত অষ্টম বার্ষিক সাধারণ সভার কার্যবিবরণী পাঠ করেন ইউনিটের সাধারণ সম্পাদক সম্পদ পেরেরা। এরপর এই প্রতিবেদনের ওপর আলোচনা হয়। আলোচনা করেন ডেনিস আলবার্ট রিবেরু (মাস্টার), শীতল ডমিনিক গোমেজ, মিন্টু কস্তা, শ্যামল ডি কস্তা, হিউবার্ট অরুণ রোজারিও ও যোয়াকিম গোমেজ প্রমুখ। সদস্যদের বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর দেন সুবোধ আর্থার রোজারিও। সবার সম্মতিতে প্রতিবেদন অনুমোদন করা হয়।
পরিচালকের প্রতিবেদন পর্বেও আলোচনা হয়। আলোচনায় বিগত বছরে অনুষ্ঠিত সভা, কতজন সদস্য, নতুন সদস্য ও নতুন বাড়ি সম্পর্কে ধারণা দেওয়া হয়।
উপস্থিতির একাংশম্যানেজার প্রতিবেদন উপস্থাপন করেন ইউনিটের ম্যানেজার পল ফিলিপ রোজারিও। তিনি বিগত বছরের আর্থিক হিসাব-নিকাশ দাখিল করেন। তিনি বলেন, এই বছর আমরা নির্ভুলভাবে হিসাব-নিকাশ দাখিল করেছি। উপস্থাপিত হিসাব সিপিএ নিরীক্ষিত ও তাদের পরামর্শেই হিসাব প্রস্তুত করা হয়েছে। এ পর্বে আলোচনায় অংশ নেন শীতল ডমিনিক গোমেজ, শ্যামল ডি কস্তা, মিন্টু কস্তা ও হিউবার্ট অরুণ রোজারিও প্রমুখ। আলোচনার পর হিসাব-নিকাশ অনুমোদন করা হয়।
ঋণ কমিটি ও সুপারভিশন কমিটির পক্ষে প্রতিবেদন উপস্থাপন করেন জুলিয়ান পিন্টু পিউরি ও রিংকু গোমেজ। এ প্রতিবেদনও অনুমোদিত হয়।
ভবিষ্য পরিকল্পনা ও নিয়ম-নীতির কিছু পরিবর্তনের পর শুরু হয় মুক্ত আলোচনা পর্ব। এতে অংশ নেন আলবার্ট ডেনিস রিবেরু, শীতল গোমেজ, শ্যামল কস্তা, ডলি রড্রিক্স, সুবীর কাস্মীর পেরেরা ও মিন্টু কস্তা।
শেষে সভাপতির ধন্যবাদ বক্তব্য, হিউবার্ট অরুণ রোজারিওর সমাপনী প্রার্থনা ও লটারি পর্বের মাধ্যমে ইউনিটের বার্ষিক সাধারণ সভা শেষ হয়।

আপনার মন্তব্য জানান